২৮শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, মঙ্গলবার

 

সরকার যুব সমাজের সুশিক্ষা নিশ্চিত করবে : শিক্ষামন্ত্রী

আপডেট: এপ্রিল ১১, ২০২৪

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন

ফারিয়া হোসেন  : শিক্ষামন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী বলেছেন, সরকার যুব সমাজের সুশিক্ষা, দক্ষতা ও কর্মসংস্থান নিশ্চিত করবে। এটা আমাদের লক্ষ্য।
বৃহস্পতিবার (১১ এপ্রিল) চট্টগ্রাম বন্দর নগরীতে প্রধান ঈদ জামাতে নামাজ শেষে শুভেচ্ছা বিনিময়কালে সাংবাদিকদের এ কথা বলেন তিনি।
এ ঈদ জামাত অনুষ্ঠিত হয় চট্টগ্রামের জমিয়তুল ফালাহ জাতীয় মসজিদে। এখানে সকাল ৮টায় প্রধান ঈদ জামাত হয়। দ্বিতীয় ঈদ জামাত হয় সকাল সাড়ে ৮টায়।
এতে ইমামতি করেন জমিয়তুল ফালাহ্ মসজিদের খতিব সৈয়দ আবু তালেব মোহাম্মদ আলাউদ্দীন আল কাদেরী।
নামাজ শেষে সমবেতদের সঙ্গে শুভেচ্ছা বিনিময়ের পর শিক্ষামন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল সাংবাদিকদের বলেন, ‘আমরা দেশবাসীকে পবিত্র ঈদুল ফিতরের শুভেচ্ছা জানাচ্ছি। বঙ্গবন্ধুর কন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে এই বাংলাদেশে আবারো নতুন সরকার গঠিত হয়েছে এ বছর থেকে। এই সরকার যুব সমাজের সুশিক্ষা, কর্মসংস্থান নিশ্চিত করবে। এটা আমাদের লক্ষ্য।’
‘এই লক্ষ্যে যাতে আমরা পৌঁছাতে পারি সেজন্য মহান আল্লাহর কাছে প্রার্থনা করেছি। বাংলাদেশ ভবিষ্যতে একটি সমৃদ্ধ স্মার্ট বাংলাদেশে রূপান্তরিত হবে বঙ্গবন্ধু কন্যার হাত ধরে, সেটা হচ্ছে এবার মহান আল্লাহপাক রাব্বুল আলআমিনের কাছে এবার আমাদের বিশেষ প্রার্থনা।’
চট্টগ্রামে দল-মত ও শ্রেণি-পেশা নির্বিশেষে সবাই ঈদের নামাজ আদায় করেছেন।
চট্টগ্রামে ঈদের সকাল ছিলো রোদ ঝলমলে। নামাজ পড়তে সকাল সকাল মসজিদ ময়দানে হাজির হন মুসল্লিরা। কাতারে কাতারে দাঁড়ান। ধর্মীয় ভাব-গাম্ভীর্য বজায় রেখে আদায় করেন ঈদুল ফিতরের নামাজ।
মসজিদ প্রাঙ্গণের তিনটি গেটের প্রতিটির সামনে ছিলো মানুষের লম্বা লাইন। তাদের কেউ এসেছেন বন্ধুদের সঙ্গে দল বেঁধে। আবার কেউ এসেছেন পরিবারের বয়োজ্যেষ্ঠ সদস্যদের নিয়ে।
মসজিদের মাঠ কানায় কানায় ভরে ওঠার পর অনেকে পাশের সড়কে দাঁড়িয়ে যান নামাজে অংশ নিতে।
এছাড়াও নগরীর ৪১টি ওয়ার্ডে সংশ্লিষ্ট ওয়ার্ড কাউন্সিলরদের তত্ত্বাবধানে একটি করে প্রধান ঈদ জামাত স্ব-স্ব মসজিদ অথবা ঈদগাহে অনুষ্ঠিত হয়েছে।

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন
Website Design and Developed By Engineer BD Network