১৪ই এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, রবিবার

 

দিনাজপুরে আত্রাই নদীর পানি বিপদসীমায়, দুর্ভোগে পানিবন্দি পরিবারগুলো

আপডেট: জুলাই ২০, ২০২০

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন

অমর চাঁদ গুপ্ত, ফুলবাড়ী (দিনাজপুর) থেকে : দিনাজপুরের প্রধান তিনটি নদীর মধ্যে আত্রাই নদীর পানি বিপদসীমার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। অবিরাম বৃষ্টিপাতসহ উত্তর থেকে নেমে আসা ঢলের পানিতে নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হয়ে পড়েছে। এতে পানি বন্দি হয়ে পড়েছেন কয়েক হাজার পরিবার। ইতোমধ্যেই পানি বন্দি পরিবারগুলো আশপাশের উঁচু এলাকাসহ নদীর বাঁধ ও রাস্তার পার্শ্বে আশ্রয় নিয়েছেন।

দিনাজপুর পানি উন্নয়ন বোর্ডের পানি সার্ভেয়ার মাহাবুব আলম বলেন, জেলার আত্রাই নদীর পানি বিপদসীমার ওপর দিয়ে পানি প্রবাহিত হচ্ছে। এ ছাড়া অন্য পুনর্ভবা ও ছোট যমুনা এই দুইটি নদীর পানি বিপদসীমা ছুঁই ছুঁই করছে। উজান থেকে পানি নেমে আসা পাহাড়ি ঢলের ফলে জেলার নদীগুলোর পানি বাড়ছে। দিনের মধ্যে যদি বৃষ্টিপাত হয় তাহলে নদীগুলোর পানি আরও বাড়র আশঙ্কা করা হচ্ছে। আর বৃষ্টি না হয় তাহলে নদীগুলোর পানি কমতে শুরু করবে।

দিনাজপুর পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী মো. ফইজুর রহমান বলেন,  রবিবার (১৯ জুলাই) দিনাজপুর শহরের পাশ দিয়ে বয়ে যাওয়া পুনর্ভবা নদীর পানি বর্তমানে ৩২ দশমিক ৭৮০ মিটারে প্রবাহিত হচ্ছে। পুনর্ভবা নদীর বিপদসীমা ৩৩ দশমিক ৫০০ মিটার। জেলার আত্রাই নদীর ৩৯ দশমিক ৬৫০মিটার বিপদসীমার বিপরীতে বর্তমানে ৩৯ দশমিক ৯৮০ মিটার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। এছাড়াও ছোট যমুনা নদীর ২৯ দশমিক ৯৫০ মিটার বিপদসীমার বিপরীতে বর্তমানে ২৮ দমশমিক ৯৮০ মিটারে প্রবাহিত হচ্ছে। পুনর্ভবা নদীর পানি বৃদ্ধির ফলে দিনাজপুর সদর উপজেলার বাঙ্গীবেচা ব্রিজ এলাকা, বালুয়াডাঙ্গা হঠাৎপাড়া, লালবাগ, রাজাপাড়ার ঘাট, বিরল মাঝাডাঙ্গা, নতুনপাড়ার এলাকার পরিবারগুলো দুর্ভোগে পড়েছেন। #

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন
Website Design and Developed By Engineer BD Network